চমকে ভরা নতুন স্কোয়াড ঘোষণা করলো পাকিস্তান

চলতি বছরের শুরুটা একদমই ভালো হয়নি পাকিস্তান ক্রিকেট দলের। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি স্কোয়াড ঘোষণা করলো পাকিস্তান। জানুয়ারি মাসে খেলা দুই টেস্টের একটিও জিততে পারেনি পাকিস্তান ক্রিকেট দল। আগামী ফেব্রুয়ারির শুরুতে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সিরিজের দ্বিতীয় ও শেষ টেস্ট খেলবে পাকিস্তান ক্রিকেট দল। এরপর দ. আফিকার সাথে তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলবে পাকিস্তান।

টি২০ সিরিজের জন্য ২০ সদস্যের স্কোয়াড ঘোষণা করেছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড। আজ রবিবার (৩১ জানুয়ারী) দুপুরে ঘোষিত পাকিস্তানের স্কোয়াডে বেশ কয়েকটি চমক রয়েছে। নিয়মিত পাঁচ সদস্যকে রাখা হয়নি ২০ জনের স্কোয়াডে, ফেরানো হয়েছে তিনজনকে এবং সুযোগ পেয়েছেন চার অনভিষিক্ত খেলোয়াড়।

বাঁহাতি ওপেনার ফাখর জামান, বাঁহাতি পেসার ওয়াহাব রিয়াজকে স্কোয়াড থেকে বাদ দেয়া হয়েছে। এছাড়া নেয়া হয়নি নিয়মিত মুখ লেগস্পিনার শাদাব খান, বাঁহাতি স্পিনিং অলরাউন্ডার ইমাদ ওয়াসিম এবং অভিজ্ঞ তারকা মোহাম্মদ হাফিজকেও দলে নেওয়া হয়নি। তবে নতুন করে দলে ফেরানো হয়েছে হাসান আলি, আসিফ আলি ও আমের ইয়ামিন।

আগামী বুধবার (৩ ফেব্রুয়ারি) বোর্ডের অফিসিয়াল এবং দলে ডাক পাওয়া খেলোয়াড়রা বায়ো বাবলে প্রবেশ করবেন। স্কোয়াডে থাকা খেলোয়াড়দের মধ্যে যারা টেস্ট সিরিজে ব্যস্ত আছেন, তারা বাবলে যোগ দেবেন শেষ টেস্ট খেলার পর।

এদিকে ১১ ফেব্রুয়ারিতে তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজ শুরু হবে। পরের দুই ম্যাচ হবে ১৩ ও ১৪ ফেব্রুয়ারি। লাহোরের গাদ্দাফি স্টেডিয়ামে সবগুলো ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে। এর আগে ৪ ফেব্রুয়ারি রাওয়ালপিন্ডিতে টেস্ট সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে মুখোমুখি হবে দক্ষিণ আফ্রিকার মুখোমুখি হবে স্বাগতিক পাকিস্তান।

দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে পাকিস্তানের টি-টোয়েন্টি স্কোয়াডঃ বাবর আজম, খুশদিল শাহ, হুসাইন তালাত, হায়দার আলি, আসিফ আলি, দানিশ আজিজ, ইফতিখান আহমেদ, জাফর গোহার, ফাহিম আশরাফ, আমের ইয়ামিন, মোহাম্মদ রিজওয়ান, সরফরাজ আহমেদ, আমাদ বাট, মোহাম্মদ নওয়াজ, শাহিন আফ্রিদি, হারিস রউফ, হাসান আলি, মোহাম্মদ হাসনাইন, জাহিদ মেহমুদ ও উসমান কাদির।