৪৪ হাজার তরুণী দিয়েছে বিয়ের প্রস্তাব: আজও তিনি ব্যাচেলর

তেজস্বী যাদব বিহারের উপ-মুখ্যমন্ত্রী ছিলেন চার বছর আগে। তখন তাঁর ছিল ২৬ কি ২৭। উপ-মুখ্যমন্ত্রী থাকা কালীন সময়ে খারাপ রাস্তা, সরকারি কর্মকর্তাদের দুর্ব্যবহার নিয়ে অভিযোগ পেতে ব্যক্তিগত একটি হোয়াটসঅ্যাপ নম্বর দিয়েছিলেন তিনি। সেই নম্বরে অভিযোগের চেয়ে বেশি এসেছিল বিয়ের প্রস্তাব।

বিহারের গণপূর্ত দফতর থেকে সে সময় জানানো হয়েছিল ৪৪ হাজার তরুণী তাদের ছবি তুলে হোয়াটসঅ্যাপে সরাসরি বিয়ের প্রস্তাব দিয়েছেন তেজস্বীকে। মাত্র ৩ হাজার মেসেজ এসেছিল রাস্তাঘাট ও উন্নয়ন সংক্রান্ত সমস্যার জন্য।

মেয়েরা মেসেজে নিজের উচ্চতা, গায়ের রঙ বিস্তারিত জানিয়েছিল তেজস্বীকে। সেই সময়ে রীতিমতো লজ্জাজনক অবস্থায় পরেছিলেন তেজস্বী এবং মজা করেই বলেছিলেন, ভাগ্যিস আমার বিয়ে হয়নি নাহলে বিপদে পড়তাম।

জনপ্রিয়তা এখনো কমেনি তেজস্বী যাদবের। বিহারের সাম্প্রতিক বিধানসভা নির্বাচনই তার প্রমাণ।