ভারতের মানচিত্র থেকে জম্মু-কাশ্মীরকে বাদ দিলো বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা

ভারতের মূল ভূখণ্ড থেকে জম্মু-কাশ্মীর এবং লাদাখকে আলাদা অংশ হিসেবে দেখানোর অভিযোগ উঠলো বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (ডব্লিউএইচও) বিরুদ্ধে। কোন দেশের করোনা পরিস্থিতি কী রকম, তা বোঝাতে সম্প্রতি একটি মানচিত্র প্রকাশ করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।

টাইমস অব ইন্ডিয়ার একটি প্রতিবেদনে বলা হচ্ছে, গোটা বিশ্বের যে মানচিত্র বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা প্রকাশ করেছে, তাতে ভারতকে গাঢ় নীল রঙ দিয়ে চিহ্নিত করা হয়েছে। কিন্তু সদ্য তৈরি হওয়া দু’টি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল জম্মু–কাশ্মীর এবং লাদাখকে দেখানো হয়েছে ধূসর রঙ দিয়ে।

অন্যদিকে ‘বিতর্কিত’ আকসাই চীনের এলাকাকে চিহ্নিত করা হয়েছে ধূসর রঙের ওপর নীল স্ট্রাইপ দিয়ে। চীনা ভূখণ্ডকে যে নীল রঙে দেখানো হয়েছে, স্ট্রাইপটিও সেই রঙেরই।

মানচিত্রটি প্রথম চোখে পড়ে লন্ডনে কর্মরত এক ভারতীয় তথ্যপ্রযুক্তি (আইটি) কর্মীর। তিনি সেটি বিভিন্ন হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপে শেয়ার করার পর বিষয়টি নিয়ে বিতর্ক শুরু হয়।

টাইমস অব ইন্ডিয়াকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি জানান, আমি দেখে হতভম্ব হয়ে গেছি, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মতো একটি প্রতিষ্ঠান কীভাবে এ কাজ করতে পারে! আমি জানি, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাকে বিপুল অর্থ অনুদান দেয় চীন। পাকিস্তানও চীনের কাছ থেকে ঋণ নিয়ে থাকে। আমার ধারণা, চীনের কথাতেই এ কাজ করেছে ডব্লিউএইচও।

উল্লেখ্য, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বিষয়টি অস্বীকার করেছে। তাদের বক্তব্য, জাতিসংঘের নিয়ম মেনেই ওই মানচিত্র তৈরি করা হয়েছে।