আত্মসমর্পণ করলেন ওসি প্রদীপ

টেকনাফে পুলিশের গুলিতে সাবেক মেজর সিনহার মৃত্যুর ঘটনায় সাবেক ওসি প্রদীপ কুমার দাস চট্টগ্রাম পুলিশের কাছে আত্মসমর্পণ করেছেন। পরে সেখান থেকে তাকে কক্সবাজারের নিয়ে যাওয়া হয়।

অপরদিকে, বাহারছড়া ফাঁড়ির ইনচার্য লিয়াকতসহ ৮ জনকে কক্সবাজার আদালতে তোলা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (০৬ আগস্ট) দুপুরে চট্টগ্রাম বিভাগীয় পুলিশ হাসপাতাল থেকে ওসিকে নিয়ে আদালতের উদ্দেশ্য রওয়ানা দেয় পুলিশ। জানা গেছে, আইনগত প্রক্রিয়ায় পুলিশ প্রদীপকে র‌্যাবের কাছে হস্তান্তর করা হবে।

বুধবার (০৫ জুলাই) রাতে সাবেক মেজর সিনহা মো. রাশেদ খান নিহতের ঘটনাকে কেন্দ্র করে টেকনাফ থানার ওসি প্রদীপ কুমার দাসকে প্রত্যাহার কর হয়।

গত ৩১ জুলাই ঈদের আগের রাতে টেকনাফের বাহারছড়া ইউনিয়নের শামলাপুর পুলিশ চেকপোস্টে গুলিতে নিহত হন সাবেক মেজর সিনহা মো. রাশেদ খান (৩৬)। তার গাড়িতে থাকা তার সঙ্গী সিফাতের ভাষ্যমতে, সিনহাকে কোনোরূপ জিজ্ঞাসাবাদ ছাড়াই চেকপোষ্টে গাড়ি থেকে নামতে বলে চার রাউন্ড গুলি ছুঁড়ে হত্যা করেন পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই লিয়াকত আলী।

এর ঘটনার বিচার চেয়ে টেকনাফ উপজেলা জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট তামান্না ফারহার আদালতে ৯ পুলিশ সদস্যকে আসামি করে মামলা করেন তার বড় বোন শারমিন শাহরিয়া ফেরদৌস।