শত বিপদ ও ঝুঁকির মুখেও পিছু হটেননি মোহাম্মাদ নাসিম

সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম ও ধর্ম প্রতিমন্ত্রী শেখ মো. আবদুল্লাহর মৃত্যুতে রাজনীতিতে অপূরণীয় ক্ষতি হয়েছে উল্লেখ করে সরকার ও বিরোধী দলের সংসদ সদস্যরা বলেছেন, করোনার কারণে নাসিমের মতো জাতীয় নেতার মুখটা শেষবারের মতোও দেখা যায়নি। এই করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলায় আরও বেশি কার্যকর উদ্যোগ নিতে হবে।

তারা বলেন, সদা হাস্যোজ্জ্বল ও বিনয়ী মোহাম্মদ নাসিম ছিলেন প্রাণচাঞ্চল্যে ভরা। এমপি-মন্ত্রী ও জাতীয় নেতা ক্যাপ্টেন মুনসুর আলীর সন্তান হয়েও তিনি অত্যন্ত সাদামাটা জীবন-যাপন করতেন। জনগণের আস্থা অর্জন করেছিলেন। শত বিপদ ও ঝুঁকির মুখেও তিনি পিছু হটেননি।

আজ রোববার (১৪ জুন) জাতীয় সংসদ অধিবেশনে শোক প্রস্তাবের ওপর আলোচনায় অংশ নিয়ে সরকার ও বিরোধী দলের সদস্যরা এসব কথা বলেন। দুই দিন বিরতির পর স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে সংসদের মুলতবি অধিবেশন আজ শুরু হয়। অধিবেশনের শুরুতে সম্পূরক কার্যসূচিতে শোক প্রস্তাব সংসদে উত্থাপন করেন স্পিকার। তিনি আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও ১৪ দলের সমন্বয়ক মোহাম্মদ নাসিমের জীবন বৃত্তান্ত তুলে ধরেন।