মাহফিল শেষে গ্রেপ্তার ইসলামি বক্তা আব্দুল্লাহ্ আল আমিন

এবার ওয়াজ মাহফিল থেকে ফেরার সময় ইসলামিক বক্তা আব্দুল্লাহ্ আল আমিনকে আটক করেছে পুলিশ। সাতক্ষীরা সদর উপজেলার ঘোনা ইউনিয়নের ভাড়ুখালি এলাকার মাহফিল শেষে গতকাল রবিবার মধ্যরাতে তাকে আটক করা হয়।

জানা যায়, ভাড়ুখালি হাফিজিয়া মাদ্রাসা পরিচালনা কমিটির আয়োজনে ভাড়ুখালি বল্ডফিল্ড মাঠে মাহফিলের আয়োজন করা হয়। সেখানে অতিথি করা হয় জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মুনসুর আহম্মেদ ও সাধারণ সম্পাদক আলহাজ নজরুল ইসলামসহ স্থানীয় গণ্যমান্য বক্তিবর্গকে। প্রধান বক্তা ছিলেন ইসলামি চিন্তাবিদ আব্দুল্লাহ্ আল আমিন।

এ ব্যাপারে ঘোনা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ফজলুর রহমান মোশা বলেন, ‘গতকাল বিকেল থেকে ওয়াজ মাহফিলের আনুষ্ঠানিক কার্যক্রম শুরু করা হয়। স্থানীয় বক্তারা বক্তব্য দিচ্ছিলেন। সেখানে জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদককেও অতিথি করা হয়। তবে তারা তারা আসেননি। আমি ওয়াজ মাহফিলে গিয়েছিলাম। সন্ধ্যার পর শুভেচ্ছা বক্তব্য দিয়ে ফিরে এসেছি।’

এ সময় তিনি আরও বলেন, ‘রাজনৈতিক বক্তব্য না দিতে প্রধান বক্তা আব্দুল্লাহ্ আল আমিনকে বলে এসেছিলাম। তিনি রাত ১০টার দিকে বক্তব্য দিতে মঞ্চে ওঠেন। আজ সোমবার সকালে জেনেছি তিনি রাজনৈতিক বক্তব্য দিয়েছেন ও পুলিশ তাকে আটক করেছে।’

রাজনৈতিক বক্তব্য কি দিয়েছেন এমন প্রশ্নে চেয়ারম্যান ফজলুর রহমান মোশা বলেন, ‘বর্তমানে রাজনৈতিক জোয়ার চলছে ভাটাও আসবে। এমন কিছু ব্যাখ্যা তিনি দিয়েছেন। এর থেকে বিস্তারিত কিছু আমি জানি না।’

এ ব্যাপারে সাতক্ষীরা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোস্তফিজুর রহমান বলেন, ‘জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তাকে নেওয়া হয়েছে। বর্তমানে তিনি ডিবি পুলিশের হেফাজতে রয়েছেন। তার বিষয়ে এখনো কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি।’