সেন্টমার্টিনে ভয়াবহ ট্রলারডুবি, বর্ণনা দিলেন বেঁচে ফেরা রোহিঙ্গারা

আজ সকালে অবৈধভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার পথে কক্সবাজারের সেন্টমার্টিনে ট্রলার ডুবে ২০ রোহিঙ্গা মারা গেছেন। আজ ১১ ফেব্রুয়ারি মঙ্গলবার সকালে সেন্টমার্টিনের ছেঁড়াদ্বীপের কাছে দক্ষিণ-পশ্চিম বঙ্গোপসাগরে এ ঘটনা ঘটে।

এ ব্যাপারে টেকনাফ থানার ওসি প্রদীপ কুমার জানান, এখন পর্যন্ত ৬৫ জনকে জীবিত উদ্ধার করা হয়েছে। তাদের ট্রলারে ৮৫ জনের মতো রোহিঙ্গা ছিলেন।

এদিকে উদ্ধার হওয়া এক রোহিঙ্গা জানিয়েছেন, সোমবার রাতে সমুদ্রপথে অবৈধভাবে মালয়েশিয়ার উদ্দেশ্যে যাত্রা করেন তারা। সকালে ছেঁড়াদ্বীপের কাছে হঠাৎ তাদের ট্রলারের ইঞ্জিন বিকল হয়ে যায়। পরে ভাসতে ভাসতে তারা যখন দক্ষিণ-পশ্চিম বঙ্গোপসাগরে এসে পরে তখন সবাই আতঙ্কিত হয়ে পড়ে। এ সময় হঠাৎ ট্রলারটি ডুবে যায়। এতে অনেকেই ডুবে যান। কেউ কেউ সাঁতরে পার হন।

এ ব্যাপারে সেন্টমার্টিন কোস্টগার্ডের স্টেশন কমান্ডার লে. কমান্ডার নাইম উল হক জানান, মৃ’তের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে। এখনও পাঁচজন নিখোঁজ রয়েছেন। ঘটনাস্থলে উদ্ধার অভিযান চালাচ্ছে বাংলাদেশ নৌ-বাহিনী ও কোস্টগার্ড সদস্যরা।